1. info@www.newsibangla.com : news :
নন্দীগ্রামে বিএনপি-যুবদলের ২শ’ নেতাকর্মীর বিরুদ্ধে মামলা - News i Bangla
সোমবার, ২৪ জুন ২০২৪, ০৩:৩৩ পূর্বাহ্ন
সর্বশেষ :
ফুলবাড়ী উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে আতাউর রহমান মিল্টন বিপুল ভোটে চেয়ারম্যান নির্বাচিত ডোমার উপজেলা চেয়ারম্যান নির্বাচিত সরকার ফারহানা আখতার সুমি চট্টগ্রামে র‌্যাবের পাতা ফাঁদে আঁটকে গেল ৪ চাঁদাবাজ নাজাত যেন মেলে নালিতাবাড়ীতে আসন্ন উপজেলা পরিষদ নির্বাচন উপলক্ষে প্রার্থীদের গণসংযোগ এক বছরের মাথায় চিলাহাটি এক্সপ্রেস কোচ লক্কড়ঝক্কড় বঙ্গমাতা ফজিলাতুন্নেছা মুজিব উচ্চ বিদ্যালয়ে শিক্ষক/কর্মচারী যোগদান অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত গাজীপুরের শ্রীপুরে ইফতার ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত চিলাহাটিতে ভোক্তা অধিকারের অভিযান, ৩ প্রতিষ্ঠানকে জরিমানা শেকড়ের সন্ধানে শীর্ষক সুরেন্দ্রনাথ কলেজের ছাত্র-ছাত্রীদের নিয়ে সপ্তম মিলনমেলা

নন্দীগ্রামে বিএনপি-যুবদলের ২শ’ নেতাকর্মীর বিরুদ্ধে মামলা

নন্দীগ্রাম/বগুড়া
  • প্রকাশিত: সোমবার, ৩০ অক্টোবর, ২০২৩
  • ৪৪ বার পড়া হয়েছে

নন্দীগ্রাম (বগুড়া) প্রতিনিধি : বগুড়ার নন্দীগ্রামে বঙ্গবন্ধু চত্বর এলাকায় ককটেল বিস্ফোরণের ঘটনায় বিএনপির ২শ’ নেতাকর্মীর বিরুদ্ধে থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। পুলিশ অভিযান চালিয়ে বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদকসহ ৬জনকে গ্রেফতার করেছে।
রোববার দুপুরে তাদেরকে বগুড়া কোর্ট হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে। গ্রেফতারকৃতরা হলেন- পৌর বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক বিষ্ণপুর উত্তরপাড়ার এনামুল হক বাচ্চু (৫৩), বিএনপি নেতা ভাগ-সিমলার আলমগীর হোসেন (৪৫), দামরুল উত্তরপাড়ার জিয়াউল হক (৩৬), বাঁশো দক্ষিণপাড়ার ফুলবর রহমান (৪৫), পৌর যুবদল নেতা ওমরপুর হাটপাড়ার যোবায়ের আহম্মেদ রাজা (৩৪) ও যুবদল নেতা ওমরপুর পশ্চিমপাড়ার আশরাফুল ইসলাম (৩৮)। নন্দীগ্রাম থানার উপ-পরিদর্শক বিকাশ চক্রবর্তী এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।
বিএনপি ও জামায়াতে ইসলামী রোববার সারাদেশে সকাল-সন্ধ্যা হরতাল কর্মসূচী ঘোষণার পর শনিবার রাতে নন্দীগ্রাম বাসস্ট্যান্ড সংলগ্ন বঙ্গবন্ধু চত্বরের পশ্চিমপাশে সিঙ্গার শো-রুমের সামনে দুটি ককটেল বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটে। সেসময় ঘটনাস্থলে জনসাধারণের ভিড় থাকলেও কেউ হতাহত হননি। বিস্ফোরণের ঘটনার পর ওই রাতেই শ্রমিকলীগ নেতা আরাফাত রহমান বাদী হয়ে বিএনপির চার নেতার নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাত ২শ’ জনকে আসামী করে বিস্ফোরক আইনে মামলাটি দায়ের করেন। এজাহারনামীয় চারজন আসামীরা হলেন- উপজেলার ভাগ-সিমলা এলাকার আলমগীর হোসেন, তারাটিয়া এলাকার আকবর আলী, কামালকুড়ির এনামুল হক টগর এবং নুন্দহ গ্রামের শাহিনুল ইসলাম। এব্যাপারে মন্তব্য নিতে মুঠোফোনে যোগাযোগের চেষ্টা করা হলেও উপজেলা বিএনপি ও যুবদলের নেতারা কল রিসিভ করেননি।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
প্রযুক্তি সহায়তায়: বাংলাদেশ হোস্টিং