1. info@www.newsibangla.com : news :
গাজার প্রাণকেন্দ্রে প্রবেশ করেছে ইসরায়েলি সেনারা - News i Bangla
শনিবার, ২০ জুলাই ২০২৪, ১০:১২ অপরাহ্ন
সর্বশেষ :
ফুলবাড়ী উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে আতাউর রহমান মিল্টন বিপুল ভোটে চেয়ারম্যান নির্বাচিত ডোমার উপজেলা চেয়ারম্যান নির্বাচিত সরকার ফারহানা আখতার সুমি চট্টগ্রামে র‌্যাবের পাতা ফাঁদে আঁটকে গেল ৪ চাঁদাবাজ নাজাত যেন মেলে নালিতাবাড়ীতে আসন্ন উপজেলা পরিষদ নির্বাচন উপলক্ষে প্রার্থীদের গণসংযোগ এক বছরের মাথায় চিলাহাটি এক্সপ্রেস কোচ লক্কড়ঝক্কড় বঙ্গমাতা ফজিলাতুন্নেছা মুজিব উচ্চ বিদ্যালয়ে শিক্ষক/কর্মচারী যোগদান অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত গাজীপুরের শ্রীপুরে ইফতার ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত চিলাহাটিতে ভোক্তা অধিকারের অভিযান, ৩ প্রতিষ্ঠানকে জরিমানা শেকড়ের সন্ধানে শীর্ষক সুরেন্দ্রনাথ কলেজের ছাত্র-ছাত্রীদের নিয়ে সপ্তম মিলনমেলা

গাজার প্রাণকেন্দ্রে প্রবেশ করেছে ইসরায়েলি সেনারা

অনলাইন ডেক্স
  • প্রকাশিত: বুধবার, ৮ নভেম্বর, ২০২৩
  • ১১৯ বার পড়া হয়েছে

ইসরায়েলের সেনারা গাজা শহরের প্রাণকেন্দ্রে অবস্থান করছে বলে বলে জানিয়েছে দেশটি। গাজার একেবারে প্রাণকেন্দ্রে ঢুকে গেছে তারা। গাজায় সহিংসতার এক মাস পেরোনোর পর দেশটির প্রতিরক্ষা মন্ত্রী ইয়োভ গ্যালান্ট এ কথা বলেছেন। প্রতিরক্ষা মন্ত্রীর বরাত দিয়ে মঙ্গলবার এ খবর জানিয়েছে আন্তজার্তিক সংবাদমাধ্যম বিবিসি।
গ্যালান্ট বলেছেন, ইসরায়েলি সেনারা স্থল, বিমান এবং নৌ পথে, এই তিনের সমন্বয়ের মাধ্যমে গাজায় হামলা চালিয়েছে। তিনি বলেন, আমরা ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রী বেনিয়ামিন নেতানিয়াহুর কাছ থেকেও শুনেছি, যিনি বলেছেন সেনারা গাজার অভ্যন্তরে ঘেরাও করছে। নেতানিয়াহু গাজাবাসীকে দক্ষিণ প্রান্তে যেতে আহ্বান করেছেন।
এদিকে মঙ্গলবার ইসরায়েলের মন্ত্রিসভার এক সদস্য নেতানিয়াহুর বরাত দিয়ে জানান, আগ্রাসনের পর ইসরায়েল গাজার জন্য সার্বিক নিরাপত্তার দায়িত্ব নেবে। এরই জের ধরে দেশটির কৌশলবিষয়ক মন্ত্রী, রন ডার্মার, বিবিসিকে জানিয়েছেন, নেতানিয়াহু বলতে চেয়েছেন ,গাজা একটি অবরুদ্ধ নিরস্ত্রীকরণ এলাকা থাকবে এবং সামরিক বাহিনী সেখানে নিরাপত্তা অভিযান পরিচালনা করবে। আর এই সিদ্ধান্তকে তিনি নতুন সন্ত্রাসীমূলক হুমকি বলে অভিহিত করেছেন। তিনি বলেন, ইসরায়েল এই এলাকা পুনর্দখল বা শাসন করবে না।
আবার মার্কিন পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, রাফাহ ক্রসিং দিয়ে ৪০০ জনেরও বেশি মার্কিন নাগরিক এখন গাজা ছেড়ে মিসরে গেছে। এর আগে, খান ইউনিস, রাফাহ এবং দেইর আল-বালাহ শহরে বিমান হামলায় অনেক মানুষ নিহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে।
অন্যদিকে, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা বলেছে, ইসরায়েল-গাজা সংঘর্ষে মৃত্যু ও দুর্ভোগের মাত্রা কল্পনার বাইরে। মুখপাত্র ক্রিশ্চিয়ান লিন্ডমেয়ার বলেছেন, যুদ্ধ শুরু হওয়ার পর থেকে স্বাস্থ্য কেন্দ্রগুলোতে কমপক্ষে শত হামলা হয়েছে।

হামাস পরিচালিত স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় অনুসারে গাজায় এখন পর্যন্ত ১০ হাজার ৩শ’ জনের বেশি মানুষ নিহত হয়েছেন, যার মধ্যে ৪ হাজার ১শ’ জন শিশু।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
প্রযুক্তি সহায়তায়: বাংলাদেশ হোস্টিং