1. sumondomar2021@gmail.com : sumon islam : sumon islam
  2. info@www.newsibangla.com : news :
রবিবার, ২৬ মে ২০২৪, ০৫:১৩ পূর্বাহ্ন
সর্বশেষ :
ডোমার উপজেলা চেয়ারম্যান নির্বাচিত সরকার ফারহানা আখতার সুমি চট্টগ্রামে র‌্যাবের পাতা ফাঁদে আঁটকে গেল ৪ চাঁদাবাজ নাজাত যেন মেলে নালিতাবাড়ীতে আসন্ন উপজেলা পরিষদ নির্বাচন উপলক্ষে প্রার্থীদের গণসংযোগ এক বছরের মাথায় চিলাহাটি এক্সপ্রেস কোচ লক্কড়ঝক্কড় বঙ্গমাতা ফজিলাতুন্নেছা মুজিব উচ্চ বিদ্যালয়ে শিক্ষক/কর্মচারী যোগদান অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত গাজীপুরের শ্রীপুরে ইফতার ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত চিলাহাটিতে ভোক্তা অধিকারের অভিযান, ৩ প্রতিষ্ঠানকে জরিমানা শেকড়ের সন্ধানে শীর্ষক সুরেন্দ্রনাথ কলেজের ছাত্র-ছাত্রীদের নিয়ে সপ্তম মিলনমেলা ফুলবাড়ীতে জাতীয় ভোটার দিবস পালিত

ধনবাড়ীতে পোল্ট্রি খামার বিষ্ঠার দুর্গন্ধে অতিষ্ঠ এলাকাবাসী

জহিরুল ইসলাম মিলন,ধনবাড়ী (টাঙ্গাইল)
  • প্রকাশিত: শনিবার, ১৮ নভেম্বর, ২০২৩
  • ৩৬ বার পড়া হয়েছে

জহিরুল ইসলাম মিলন,ধনবাড়ী (টাঙ্গাইল) প্রতিনিধি :
টাংগাইলে ধনবাড়ী উপজেলার পাইস্কা ইউনিয়নের থোড়া গ্রামে
পরিবেশ নীতি উপেক্ষা করে গ্রাম এলাকায় পোল্ট্রি খামার এবং অপরিচ্ছন্নতার অভিযোগ মৃত: আফছার আলীর ছেলে,মো:মোশাররফ হোসেন এর বিরুদ্ধে
ধনবাড়ী উপজেলার নির্বাহী অফিসার বরাবর লিখিত অভিযোগ করেছে একই গ্রামের স্থাই বাসিন্দা মৃত: মুহাম্মদ আলীর ছেলে,
মোঃ সুরুজ্জামান

থোড়া গ্রামে মুরগির খামারের বিষ্ঠার দুর্গন্ধে অতিষ্ঠ এলাকাবাসী ও মসজিদের মুসল্লিরা অভিযোগ উঠেছে, নীতিমালা উপেক্ষা করে গ্রামের ঘনবসতিপূর্ণ এলাকায় খামারটি স্থাপন করা হয়েছে। এ বিষয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) এর কাছে লিখিত অভিযোগ দিয়েছে গ্রামের মৃত: মুহাম্মদ আলী এর ছেলে,মো: নুরুজ্জামান।

লিখিত অভিযোগ তিনি বলেন, আমার থাকার ঘর সংলগ্ন পোল্ট্রি ফার্ম করে ব্যবসা করিতেছে। আমার ঘরের পাশেই ফার্মের বিষ্টা ফেলে রাখে। পোল্ট্রি ফার্ম ও পোল্টির পৃষ্টার গন্ধে ঘরে বসবাস করা অসম্ভব হয়ে পড়েছে। বাড়ির লোকজন নানান রোগে আক্রান্ত হচ্ছে।

মাস কয়েক আগে থোড়া গ্রামের মোশাররফ হোসেন গ্রামের ঘনবসতিপূর্ণ এলাকায় ব্রয়লার মুরগির খামার স্থাপন করেন। বর্তমানে খামারে প্রায় ১০০০ হাজার মুরগি রয়েছে। মুরগির বিষ্ঠার কারণে এলাকার পরিবেশ দূষিত হচ্ছে। বিষ্ঠার দুর্গন্ধে খামারের চারদিকে মানুষের বসবাস করা দায় হয়ে পড়েছে। অথচ নীতিমালা অনুযায়ী, একটি মুরগির খামার স্থাপনের জন্য পরিবেশ অধিদপ্তরের অনুমতি ও প্রাণিসম্পদ কার্যালয় থেকে রেজিস্ট্রেশনভুক্ত হতে হবে। ঘনবসতিপূর্ণ এলাকা এবং জনগণের ক্ষতি হয় এমন স্থানে খামার স্থাপন করা যাবে না।

গতকাল থোঠা গ্রামে গিয়ে দেখা যায়, খামারটির আশপাশে মুরগির বিষ্ঠা ছড়িয়ে–ছিটিয়ে আছে। পানিনিষ্কাশনের ব্যবস্থা নেই। খামারের চারপাশে বসতবাড়ি। এসব বাড়ি থেকে তীব্র দুর্গন্ধ পাওয়া যাচ্ছে।

গ্রামের বাসিন্দারা বলেন, খামারের পাশেই মসজিদ বিষ্ঠা থেকে সব সময় দুর্গন্ধ ছড়ায় মুসলিমদের নামাজের বিঘ্ন ঘটে । আশপাশে বসবাস করা কষ্টসাধ্য হয়ে পড়েছে।

খামারে গিয়ে কথা হয় মালিক মোশাররফ হোসেন এর সাথে তার কাছে জিজ্ঞাসা করা হয় খামারে সকল আইন কানুন মেনে খামার করা হয়েছে কিনা প্রশ্নের উত্তরে তিনি না বলেন।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
প্রযুক্তি সহায়তায়: বাংলাদেশ হোস্টিং