1. info@www.newsibangla.com : news :
সেপটি ট্যাংকি পরিষ্কার করতে গিয়ে ২ জনের মৃত্যু - News i Bangla
সোমবার, ২৪ জুন ২০২৪, ০২:৫৫ পূর্বাহ্ন
সর্বশেষ :
ফুলবাড়ী উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে আতাউর রহমান মিল্টন বিপুল ভোটে চেয়ারম্যান নির্বাচিত ডোমার উপজেলা চেয়ারম্যান নির্বাচিত সরকার ফারহানা আখতার সুমি চট্টগ্রামে র‌্যাবের পাতা ফাঁদে আঁটকে গেল ৪ চাঁদাবাজ নাজাত যেন মেলে নালিতাবাড়ীতে আসন্ন উপজেলা পরিষদ নির্বাচন উপলক্ষে প্রার্থীদের গণসংযোগ এক বছরের মাথায় চিলাহাটি এক্সপ্রেস কোচ লক্কড়ঝক্কড় বঙ্গমাতা ফজিলাতুন্নেছা মুজিব উচ্চ বিদ্যালয়ে শিক্ষক/কর্মচারী যোগদান অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত গাজীপুরের শ্রীপুরে ইফতার ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত চিলাহাটিতে ভোক্তা অধিকারের অভিযান, ৩ প্রতিষ্ঠানকে জরিমানা শেকড়ের সন্ধানে শীর্ষক সুরেন্দ্রনাথ কলেজের ছাত্র-ছাত্রীদের নিয়ে সপ্তম মিলনমেলা

সেপটি ট্যাংকি পরিষ্কার করতে গিয়ে ২ জনের মৃত্যু

এম.মুনসুরুল ইসলাম মাসুম
  • প্রকাশিত: বৃহস্পতিবার, ২১ ডিসেম্বর, ২০২৩
  • ১২৯ বার পড়া হয়েছে

এম.মুনসুরুল ইসলাম মাসুম শ্রীপুর গাজীপুর প্রতিনিধিঃ শ্রীপুর উত্তর পাড়া চৌকিদার ভিটা এলাকায় মন্ডল বাড়ির সংলগ্ন নতুন সেফটি ট্যাংকির কাঁট বাঁশ উঠাতে গিয়ে দুই জনের প্রাণ গেলো।
নির্মাণাধীন বাড়ির সেপটি ট্যাংকে পরিষ্কার দুই নির্মাণশ্রমিকের মৃত্যু হয়েছে। প্রথমে এলাকাবাসী খবর পেয়ে শ্রীপুর থানাতে খবর দিলে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে নিহতদের মৃতদেহ দেখতে পায়। পরে পুলিশ ফায়ার সার্ভিসে খবর দিলে ফায়ার সার্ভিসের টিম এসে ১৫/২০ মিনিট চেষ্টার পর দুজনের মরদেহ উদ্ধার করতে সক্ষম হয়। নিহত শ্রমিকেরা হলেন নেত্রকোনার দিঘজান গ্রামের মো. মোখলেছ (৪২) এবং ঠাকুরগাঁওর রুহিয়া থানার মো. মাসুম (২৪)।
ফায়ার সার্ভিস জানিয়েছে, বিষাক্ত গ্যাসের কারণে শ্বাস বন্ধ হয়ে তাঁদের মৃত্যু হয়ে থাকতে পারে। বুধবার বিকেল ৩টার দিকে আবু সাঈদ প্রবাসীর বাড়িতে ওই ঘটনা ঘটে। সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার দিকে দুই শ্রমিকের মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়েছে।
আবু সাঈদের নির্মাণাধীন বহুতল ভবনের কাজ চলছে। ওই বাড়িতে একটি সেপটিক ট্যাংক নির্মাণ করা হয়। সেই সেপটিক ট্যাংকের ভেতরে বাঁশ ও কাঠ খুলতে আজ সকালে মোখলেছ ও মাসুম ভেতরে নামে। দুপুর গড়িয়ে বিকেল হয়ে গেলেও তাঁদের কোনো সাড়াশব্দ না পেয়ে পাশের অপর একটি বাড়িতে কাজ করা তাঁদের সহকর্মী মোখলেছের মোবাইল ফোনে কল দিয়ে তা বন্ধ পায়। পরে সহকর্মী রুহুল আমিন বিকেলে ঘটনাস্থলে এসে ট্যাংকের পাশে এসে মোখলেছ ও মাসুমকে মৃত অবস্থায় সেপটিক ট্যাংকের পানির মধ্যে ভাসতে দেখে পুলিশ খবর দেন।

নিহত শ্রমিক মোকলেছুর রহমানের চাচাতো ভাই রুহুল আমিন বলেন, ‘আমি পাশের একটি সাইডে কাজ করছিলাম। তাদের ফোন নম্বর বন্ধ পেয়ে ঘটনাস্থলে এসেও তাদের কোনো খোঁজখবর পাইনি। এরপর সেপটিক ট্যাংকে উঁকি মেরে দেখি ওরা দুজন পানিতে ভাসছে। এরপর সঙ্গে সঙ্গে স্থানীয়দের জানাই। পরে স্থানীয় ওয়ার্ড কাউন্সিলর পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিসকে খবর দেন।’

শ্রীপুর ফায়ার সার্ভিসের স্টেশন অফিসার মো. মাহবুবুর রহমান বলেন, ‘আমরা পুলিশের মাধ্যমে বিষয়টি জানতে পেরে ঘটনাস্থলে এসে ১৫/২০ মিনিটের চেষ্টায় দুই শ্রমিকের মৃতদেহ উদ্ধার করি। ধারণা করা হচ্ছে, বিষাক্ত গ্যাসের কারণে দম বন্ধ হয়ে তাদের দুজনকে মৃত্যু হয়েছে। তবে কী ধরনের গ্যাস, এটা তাৎক্ষণিকভাবে বলা যাচ্ছে না।
শ্রীপুর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মো. শাখাওয়াৎ হোসেন বলেন, সেপটিক ট্যাংকের ভেতর থেকে শ্রমিকদের মরদেহ দুটি উদ্ধার করা হয়েছে। এ বিষয়ে পরবর্তী আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
প্রযুক্তি সহায়তায়: বাংলাদেশ হোস্টিং