1. sumondomar2021@gmail.com : sumon islam : sumon islam
  2. info@www.newsibangla.com : news :
শনিবার, ২৪ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৩:৩২ অপরাহ্ন
সর্বশেষ :
তজুমদ্দিনে “মহান শহীদ দিবস” ও “আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস” পালিত হয়েছে হাতীবান্ধায় মাদকসহ জলঢাকা পৌর ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক আটক নড়াইলে যথাযোগ্য মর্যাদায় শহিদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত।এসপি মেহেদী হাসান পুষ্পস্তবক অর্পণ করেন ফরিদপুর জেলা প্রশাসনের উদ্যোগে প্রভাত ফেরী অনুষ্ঠিত ও ভাষা শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন চাঁপাই প্রেসক্লাবের শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন লালমোহনে “মহান শহীদ দিবস” ও “আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস” পালিত হয়েছে সমাপনী অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে শেষ হলো জসিম পল্লী মেলা ৬ নং মাড়েয়া বামন হাট ইউনিয়নে ভাষা শহিদদের প্রতি বিনম্র শ্রদ্ধাজ্ঞাপন দিনাজপুরের ফুলবাড়ীতে বিজিবি কর্তৃক ৮ কোটি টাকার মাদকদ্রব্য ধ্বংস ভাঙ্গায়  ৩ দিন ধরে এক স্কুল ছাত্র নিখোঁজ

আমতলীতে বিষ প্রয়োগে ১৬টি হাঁস হত্যা, থানায় অভিযোগ

অনলাইন ডেক্স
  • প্রকাশিত: বৃহস্পতিবার, ২৮ ডিসেম্বর, ২০২৩
  • ১৬ বার পড়া হয়েছে

আমতলী (বরগুনা) প্রতিনিধি: বরগুনার আমতলী উপজেলার আড়পাঙ্গাশিয়া ইউনিয়নের মধ্যতারিকাটা গ্রামে প্রতিবেশীর জমিতে হাঁস বিচরণ করার অপরাধে বিষ প্রয়োগে এক দিন মজুরের ১৬টি হাঁস হত্যার অভিযোগ পাওয়া গেছে। ওই ঘটনায় হাঁসের মালিক আবু জাফর বাদী হয়ে আমতলী থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন।
জানা গেছে, উপজেলার মধ্যতারিকাটা গ্রামের হারুন তালুকদারের ছেলে দিনমজুর মোঃ আবু জাফরের পালন করা ১৬টি হাঁস প্রতিবেশী নাসির উদ্দিন হাওলাদারের জমিতে বিচরণ করার অপরাধে তার স্ত্রী জাকিয়া বেগম বুধবার বিকেল ধানের সাথে বিষ মিশিয়ে ওই খেতে ছিটিয়ে রাখে।
জাফরের পালিত হাঁসে ওই বিষ মিশ্রিত ধান খেয়ে বাড়িতে আসামাত্র এক এক করে ১৬টি হাঁস মাটিতে লুটিয়ে পরে এবং কিছুক্ষনের মধ্যে মারা যায়। এভাবে বহু কষ্টে পালন করা আবু জাফরের ১৬টি হাঁস মাটিতে লুটিয়ে পড়তে দেখে আবু জাফর এবং তার স্ত্রী ফাহিমা বেগম কান্নায় ভেঙ্গে পরেন।
ওই ঘটনায় বুধবার রাতে আবু জাফর বাদী হয়ে নাসির উদ্দিন হাওলাদারের স্ত্রী জাকিয়া বেগমের বিরুদ্ধে বিষ প্রয়োগে ১৬টি হাঁস হত্যার অভিযোগ এনে আমতলী থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন।
হাঁসের মালিক আবু জাফর অভিযোগ করে বলেন, নাসির উদ্দিন হাওলাদার এবং তার স্ত্রী জাকিয়া বেগম খারাপ প্রকৃতির লোক। হেরা মোর পাশের বাড়ির মানুষ। হেগো জমিতে মোর আস (হাঁস) যাওয়ায় ধানের সাথে এন্ডি (বিষ) দিয়ে মোর ১৬টি আস (হাঁস) মাইর‌্যা হালাইছে। মুই এইয়া কইতে যাওয়াও নাসির ও হের বউ জাকিয়া মোরে মারতে আইছে। হের পর মোগো গ্রাম ছাড়া করার ডর (হুমকি) দেহায়।
আবু জাফরের স্ত্রী ফাহিমা বেগম কান্না জড়িত কন্ঠে বলেন, মোরা গরিব মানুষ খাইয়া না খাইয়া আস (হাঁস) পালছি। হেই আস (হাঁস) পাশের বাড়ির জাকিয়া বেগম মাইর‌্যা হালাইছে। মুই এইআর বিচার চাই।
অভিযুক্ত জাকিয়া বেগম বিষ প্রয়োগে হাঁস হত্যার অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, কারা হাঁস মেরেছে ওই বিষয়ে আমি কিছু জানি না।
আমতলী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কাজী শাখাওয়াত হোসেন তপু বলেন, বিষ প্রয়োগে ১৬টি হাঁস হত্যার অভিযোগ পেয়ে তদন্তের জন্য ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। তদন্তে প্রমানিত হলে ওই বিষয়ে অভিযুক্তের বিরুদ্ধে আইনী ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
প্রযুক্তি সহায়তায়: বাংলাদেশ হোস্টিং