1. info@www.newsibangla.com : news :
উপজেলা চেয়ারম্যান এর বিরুদ্ধে সংবাদ সম্মেলন করেছে নির্যাতিত পরিবারের সদস্যরা - News i Bangla
বৃহস্পতিবার, ২০ জুন ২০২৪, ০৯:২৪ অপরাহ্ন
সর্বশেষ :
ফুলবাড়ী উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে আতাউর রহমান মিল্টন বিপুল ভোটে চেয়ারম্যান নির্বাচিত ডোমার উপজেলা চেয়ারম্যান নির্বাচিত সরকার ফারহানা আখতার সুমি চট্টগ্রামে র‌্যাবের পাতা ফাঁদে আঁটকে গেল ৪ চাঁদাবাজ নাজাত যেন মেলে নালিতাবাড়ীতে আসন্ন উপজেলা পরিষদ নির্বাচন উপলক্ষে প্রার্থীদের গণসংযোগ এক বছরের মাথায় চিলাহাটি এক্সপ্রেস কোচ লক্কড়ঝক্কড় বঙ্গমাতা ফজিলাতুন্নেছা মুজিব উচ্চ বিদ্যালয়ে শিক্ষক/কর্মচারী যোগদান অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত গাজীপুরের শ্রীপুরে ইফতার ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত চিলাহাটিতে ভোক্তা অধিকারের অভিযান, ৩ প্রতিষ্ঠানকে জরিমানা শেকড়ের সন্ধানে শীর্ষক সুরেন্দ্রনাথ কলেজের ছাত্র-ছাত্রীদের নিয়ে সপ্তম মিলনমেলা

উপজেলা চেয়ারম্যান এর বিরুদ্ধে সংবাদ সম্মেলন করেছে নির্যাতিত পরিবারের সদস্যরা

অনলাইন ডেক্স
  • প্রকাশিত: রবিবার, ২৮ জানুয়ারী, ২০২৪
  • ২৪ বার পড়া হয়েছে

এম.মুনসুরুল ইসলাম মাসুম শ্রীপুর, গাজীপুর: রবিবার (২৮ ইং জানুয়ারি ২০২৪ইং) বিকেলে উপজেলার গোসিংগা বাজার সংলগ্ন এলাকায় বর্তমান উপজেলা চেয়ারম্যান এ্যাড. শামসুল আলম প্রধানের বিরুদ্ধে একই এলাকার শরীফ হোসেন ও তার পরিবার সাংবাদিক সম্মেলন করেছেন। এসময় নির্যাতিত পরিবারের পক্ষ থেকে নিম্ন লিখিত বক্তব্য উপস্থিত সাংবাদিকদে সামনে উপস্থাপন করেন।
উপস্থিত সম্মানিত সাংবাদিক ভাইয়েরা,
আসসালামু আলাইকুম। শ্রীপুর উপজেলা চেয়ারম্যান জনাব শামসুল আলম প্রধানের মদদপুষ্ট হয়ে আমার এবং আমার পরিবারের সদস্যদের উপর বিভিন্ন সময়ে মামলা হামলা, হুমকি ধমকি দেয়া সহ আমাদের আর্থিক ক্ষতি সাধন করে চলেছে তার ঘনিষ্ঠ কিছু দুষ্কৃতকারী আত্মীয় স্বজনরা , আমরা তাদের অত্যাচারে আজ বিদেশে থাকি, পরিবার নিয়ে নিজ এলাকায় বসবাস করতে পারছিনা। সহায় সম্পদ এবং জমিজমা হারাতে বসেছি। শামসুল আলম প্রধানের প্রভাবে আমরা ন্যায়বিচার পাচ্ছি না, নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছি। তাই নিরুপায় হয়ে আপনাদের মুখোমুখি দাঁড়িয়ে সাহায্য প্রার্থনা করছি। আমার নাম মোঃ শরিফ হোসেন, আমার সাথে উপস্থিত আমার আপন ছোট ভাই মোঃ শাকিল হোসেন। আমাদের বাড়ী গাজীপুর জেলার, শ্রীপুর উপজেলার গোসিংগা ইউনিয়নে। আজ আমি আমার পরিবারের পক্ষে এই সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত হয়েছি, আপনাদের মাধ্যমে কিছু কথা বলার জন্য। নাগরিক অধিকার আদায়ে এবং ন্যায়বিচার পাওয়ার সর্বশেষ চেষ্টা হিসাবে আমি বাধ্য হয়েছি গণমাধ্যমের মুখোমুখি দাঁড়িয়ে আমার এবং আমার পরিবারের সদস্যদের উপর যে অমানবিক এবং পাশবিক নির্যাতন চালানো হয়েছে সেই চিত্র তুলে ধরার জন্য। আপনারা সমাজের দর্পন, রাষ্ট্রের চোখ হিসাবে আপনাদের গণ্য করা হয়। আপনারা সমাজে ন্যায় বিচারের স্বার্থে কাজ করে চলেছেন, তাই আপনারা আমার শেষ ভরসার জায়গা।
বিজ্ঞ সাংবাদিক মহোদয়গণ , আমি একজন সাধারণ মানুষ। পারিবারিক ভাবে আমরা আওয়ামী পরিবারের সদস্য। ছাত্রজীবন থেকেই আওয়ামী লীগের রাজনীতির সাথে যুক্ত আমার ভাইও সাবেক গোসিংগা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক, বর্তমানে স্বেচ্ছাসেবক লীগের রাজনীতি করছে। গত নির্বাচনে সে গোসিংগা ইউনিয়ন স্বেচ্ছাসেবক লীগের কেন্দ্র কমিটির আহবায়ক হিসাবে দায়িত্ব পালন করেছে। অথচ এই আওয়ামী লীগের আমলেই আমি এবং আমার পরিবার সীমাহীন দুঃখ কষ্ট ভোগ করে চলেছি। বিচারহীনতার শিকার হচ্ছি বারবার। একজন নষ্ট রাজনৈতিক নেতার রোষানলে পড়ে আমাদের আজকের এই দুর্দশা। শ্রীপুর উপজেলা চেয়ারম্যান জনাব শামসুল আলম প্রধানের প্রত্যক্ষ এবং পরোক্ষ মদদে, তারই ঘনিষ্ঠ আত্মীয় স্বজনরা আমার এবং আমার পরিবারের সীমাহীন দুঃখের কারণ হয়ে দাড়িয়েছে।
এই শামসুল আলম প্রধান একজন কুখ্যাত মানুষ। সমাজের মানুষ তার এবং তার আত্মীয় স্বজনের অত্যাচারে অতিষ্ঠ। ভয়ে কেউ মুখ খুলতে চায়না। কিন্তু আপনারা সাংবাদিক সমাজ, আপনারা এলাকায় গিয়ে তথ্য প্রমাণ নিয়ে দেখতে পারেন। তার এলাকার মানুষ তার উপর কতোটা বিরক্ত। তার কারণে আওয়ামী লীগের ভয়াবহ দুর্নাম হচ্ছে। বিজ্ঞ সাংবাদিক মহোদয়গণ আপনারা তদন্ত করে দেখেন উনার পরিবারের কেউ আওয়ামীলীগের রাজনীতির সঙ্গে সম্পৃক্ত নয়। তারা জামাত শিবিরের রাজনীতির সাথে সম্পৃক্ত। তার এক ভাই শ্রীপুর থানা জামে মসজিদের ইমাম। এই ইমাম সাহেব নিজে এবং উনার ২ সন্তান জামায়াতের রাজনীতির সঙ্গে সম্পৃক্ত। উনি উপজেলা চেয়ারম্যান নির্বাচিত হওয়ার পর থেকেই সাধারণ মানুষকে মামলা- হামলায় জড়িয়ে সর্বশান্ত করে নিঃস্ব করে ছাড়ে। নিজে আইনজীবী হওয়ার সুবাদে এসব অপকর্ম করে পার পেয়ে যাচ্ছে।

গত উপজেলা নির্বাচনে আঃ জলিল ভাইয়ের নৌকা মার্কার নির্বাচন করার অপরাধে আমাদের উপর তার নগ্ন চক্রান্তের শুরু হয়। তিনি মোটরসাইকেল মার্কায় উপজেলা চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়ে আমাদের দু ভাইকে দেশ ছাড়া করেন। এরপর আমাদের নামে কয়েকটি মিথ্যা মামলা করান তার আত্মীয়দের দিয়ে। আমরা বিদেশে থাকা অবস্থায়, আমাদের জমিজমা কেড়ে নেওয়ার চক্রান্ত করেন। আমাদের জমির বাউন্ডারি দেওয়াল সহ স্থায়ী স্থাপনা ভেঙে গুড়িয়ে দেন রাতের অন্ধকারে। কয়েক বিঘা কলা ক্ষেত কেটে ফেলে আর্থিক ক্ষতি করেন। পরবর্তীতে আমার বাড়ীর গ্যারেজে রাখা প্রাইভেট কারে আগুন জ্বালিয়ে দেয়। আমার বাবাকে বিনা অপরাধে থানায় ডেকে নিয়ে আটকে রাখে এবং পরে মিথ্যা মামলা দিয়ে জেলে পুড়ে দেয়। সে কারণে আমার বাবা মা দুজনেই এখন স্ট্রোক করে শয্যাশায়ী। আমরা দু ভাইকে বিদেশে থাকা অবস্থায় ধর্ষণ মামলার আসামি করে মামলা করেও আমাদের হয়রানি করে চলেছে।
গত দুদিন আগেও আমার জায়গায় স্থাপনার কাজ করা অবস্থায় আমার কেনা জমিতে দখলে যেতে দিবে না মর্মে লোকজন নিয়ে হামলা করে ভাংচুর করেছে। যার মধ্যে, চিহ্নিত মহিলা ও পুরুষ, মম আক্ত(২৭), তাহমিনা (৩৬), সাদেক ফকির (৬৫), আবু সাইদ(৪৫) সহ আরও অর্ধশতাধিক লাঠিয়াল বাহিনী সহ শাবল খুন্তি জাতীয় দেশীয় অস্ত্র নিয়ে বাউন্ডারি দেয়াল ভেঙে ফেলে এতে প্রায় এক লক্ষ বিশ হাজার টাকার ক্ষতি সাধন করে। এবিষয়ে মোঃ রাজু শেখ বাদী হয়ে গত ২৫/১/২০২৪ ইং তারিখে শ্রীপুর থানায় একটি সাধারণ ডাইরি করে যার জিডি নং- ১৫০১। আমাদের উপর দিয়ে মামলা করায় এবং আবারও ধর্ষণ মামলার হুমকি দিয়ে চলছে। থানা এ বিষয়ে সাধারণ ডায়েরি করা হয়েছে। কিন্তু এখনো তদন্ত আসেনি। শামসুল আলম প্রধান প্রভাব খাটিয়ে এবারও আমাদের ন্যায়বিচার পাওয়া থেকে বঞ্চিত করবেন বলে আমরা আশংকা প্রকাশ করছি। তাই নিরুপায় হয়ে আপনাদের মুখোমুখি দাঁড়িয়েছি।
বন্ধুগণ, আমি যে সকল অভিযোগ করেছি উপজেলা চেয়ারম্যান জনাব শামসুল আলম প্রধানের বিরুদ্ধে, তা সম্পূর্ণ সত্য। আপনারা সত্য মিথ্যা যাচাই-বাছাই করতে সবচেয়ে বেশি পারদর্শী, আপনারা সত্য মিথ্যা যাচাই-বাছাই করুন। তিনি কৌশলে চক্রান্ত করে চলেছেন, হুমকি ধমকি দিয়ে চলেছেন। আমরা তার প্রভাবের কাছে অসহায় এবং নিরুপায় হয়ে পড়েছি। আপনারা আমার পরিবারের পাশে দাড়িয়ে আমাদের বাচান। ন্যায়বিচার পেতে সাহায্য করুন। আপনাদের সহযোগিতা প্রার্থনা করছি। পরিশেষে, আপনাদের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছি আমাদের বক্তব্য ধৈর্যের সঙ্গে শোনার জন্য।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
প্রযুক্তি সহায়তায়: বাংলাদেশ হোস্টিং